রীক্ষার জন্য চীনের টিকা আসা পেছালো

রীক্ষার জন্য চীনের টিকা আসা পেছালো

বাংলাভাষী ডেস্ক:

চীনের সিনোভ্যাক কোম্পানির তৈরি করোনার টিকা পরীক্ষার জন্য এখনো দেশে পৌঁছায়নি। আজ (বুধবার) এই টিকা বাংলাদেশে আসার কথা থাকলেও চীনের কাষ্টমস কর্তৃপক্ষের কিছু জটিলতায় তা পিছিয়ে যায়।

আইসিডিডিআরবি’র জ্যেষ্ঠ বিজ্ঞানী ড. কে জামান বলেন, বাংলাদেশের পক্ষ থেকে কোন জটিলতা নেই। তবে সিনোভ্যাক কোম্পানী এখনো তাদের দেশের কাষ্টমস কর্তৃপক্ষের কাছ থেকে ছাড়পত্র পায়নি।
এছাড়া তাদের কিছু প্রস্ততিরও ঘাটতি রয়েছে বলে জানিয়েছে। কবে নাগাদ এই টিকা বাংলাদেশে আসবে জানতে চাইলে তিনি বলেন, এখনই তারিখ বলা যাচ্ছে না। তিনি বলেন, চীনের ওই কোম্পানীর সাথে নিয়মিত যোগাযোগ হচ্ছে। আগামী এক সপ্তাহের মধ্যেই নির্দিষ্ট তারিখ জানা যাবে।
তিনি জানান, সিনোভ্যাক কোম্পানীর এই টিকার তৃতীয় ধাপের পরীক্ষা অর্থাৎ মানবদেহে প্রয়োগের মাধ্যমে পরীক্ষাটি বাংলাদেশে হবার কথা। আর এই পরীক্ষাটি করবার জন্য সরকার আইসিডিডিআরবি’কে অনুমতি দিয়েছে।
এছাড়াও করোনা ভাইরাসের সামাজিক সংক্রমণ বেশি সেসব দেশেও চলছে এই পরীক্ষা। ইতোমধ্যে ব্রাজিলে মানবদেহে পরীক্ষামূলক প্রয়োগের পর এখন তাদের পর্যবেক্ষণ করা হচ্ছে। সিনোভ্যাকের ১৫ হাজার টিকা দেশে আনা হবে। এরপর ৭টি হাসপাতালের নির্ধারিত স্বাস্থ্যকর্মীদের উপর টিকা প্রয়োগ করে গবেষণা কার্যক্রম চলবে। ২টি করে ডোজ দেয়া হবে। ফল পেতে সময় লাগবে অন্তত ৬ মাস।