সুবোধ এবং প্রকৃত দেশপ্রেম

সুবোধ এবং প্রকৃত দেশপ্রেম

গোলাম কবির 
লিখে রাখি বুকের গহীনে খোদাই করে
 শিরোনামহীন কতো কবিতা তোমার জন্য,
 তুমি থাকলেই আমার ঐসব কবিতা
 গুলো পাবে শিরোনাম এবং হৃদয়ের যতো
 দুঃখের জমাট মেঘদল এক লহমায় 
 হয়ে যাবে আমারই বালক বয়সে
 সবচেয়ে পছন্দের রঙিন বাহারি মার্বেল 
  কিংবা বাতাসার থরে থরে সাজানো ঝুড়ি,
 গ্রাম্যমেলায় সবচেয়ে বুড়ো বট গাছটার
 নীচে গোল হয়ে আড্ডায় বসে থাকা 
সবচেয়ে অলস মানুষটিও তখন গাইবে
 ফসল ফলানো গান দেহের নোনা ঘামের
 বৃষ্টিতে ভিজে! তুমি থাকলে, শুধু তুমি
 থাকলেই একজন সরকারি কর্মকর্তা 
ঘুষ খেতে ভুলে গিয়ে জনগণের 
প্রকৃত সেবক হয়ে উঠবে এবং যোগ্য ব্যক্তিই
 পাবে তার যোগ্যতার সম্মান! 
তুমি থাকলে আবার আমার দেশের
কিশোর কিশোরীরা অবারিত সবুজ মাঠে
 কিংবা খোলা আকাশের নীচে এক্কাদোক্কা,
 ওপেনটি বায়স্কোপ, কুতকুত, লুকোচুরি
 এবং আরো কতো খেলা খেলতে পারবে
 নির্বিঘ্নে, যেখানে এখন তারা বন্দী থাকে
 চারদেয়ালের মধ্যে একেবারেই ব্রয়লার
 মুরগি কিংবা পোষা কোয়েল পাখিদের
 মতো এবং প্রতিদিনই ভয়ে থাকে হঠাৎ
 করেই ধর্ষণ কিংবা বলৎকারের শিকার
 হবার! হায় রে মানুষ! এতো কিছুর উন্নয়ন
 হলো পুরো পৃথিবী জুড়ে কিন্তু মানুষের
 মূল্যবোধের ধস নেমে এলো, মানুষেরা, 
 মানুষেরা এখন এমন হলো কেনো! 
 তুমি কোথায় থাকো 
 সুবোধ এবং প্রকৃত দেশপ্রেম? 
 তোমার ফিরে আসা পথের দিকে 
 এখনো চাতক চোখে অপেক্ষায় থাকি
 প্রত্যহ সকাল থেকে সন্ধ্যা গড়িয়ে নিকষ
 কালো কিংবা জ্যোৎস্নাময় রাত অব্দি।